ট্যাগ সংরক্ষণাগার:বৌদ্ধদের ইতিহাস

পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথেরো : সংক্ষিপ্ত কর্ম ও জীবন

ঊন্নিশো ত্রিশ সালের দশই জুন তৎকালীন ব্রিটিশ ভারতের বেঙ্গল প্রেসিডেন্সির (বর্তমান বাংলাদেশ) কক্সবাজার জেলার রামু উপজেলার পশ্চিম মেরংলোয়া গ্রামে হরকুমার বড়ুয়া এবং প্রেমময়ী বড়ুয়ার ঘরে জন্মগ্রহণ করেন বিধু ভূষণ বড়ুয়া। হরকুমার ও প্রেমময়ীর তৃতীয় এবং শেষ সন্তান হিসেবে জন্মগ্রহণ করেছিলেন বিধু ভূষণ। অন্য দশজন ছেলের মতো শিক্ষা দীক্ষা নিয়ে বেড়ে উঠছিলেন বিধূ ভূষণ বড়ুয়া। মহামানব গৌতম বুদ্ধের অহিংস দর্শন এবং সংসার ত্যাগের অসীম বানীসমূহ দারুণভাবে নাড়া দিয়েছিলো বিধূ ভূষণের মনে। …

আরও পড়ুন

ঠেগরপুণি মেলার ইতিহাস

পঞ্চদশ শতাব্দীতে ঠেগরপুনি গ্রামে অবস্থান করতেন চকরিয়া নিবাসী রাজমঙ্গল মহাস্থবির। চন্দ্রজ্যোতি ভিক্ষু কর্তৃক ব্রক্ষদেশ থেকে আনিত একটি ত্রিভঙ্গ বুদ্ধমূর্তি তার পিতৃব্য রাজমঙ্গল মহাস্থবির ঠেগরপুনি গ্রামের বিহারের পার্শে কাঠের ঘর প্রতিষ্ঠা করেন ৷ তৎকালীন চিরিজিয়া নামী একজন স্ত্রীলোক ঠেগরপুনি গ্রামে একটা বুদ্ধ মন্দির নির্মান করে দেন । মন্দিরে অতি প্রাচীন কালের কালবর্ণ প্রস্তরের বুদ্ধ মূর্ত্তি স্থাপিত আছে । বরিয়া গ্রামের প্রেতরাম বড়ুয়া ও ঠেগরপুনি গ্রামের শ্রীযুক্ত ধর্ম্ম সিংহ বড়ুয়া প্রত্যেকে এক …

আরও পড়ুন

ভারত শাসন আইন ও বৌদ্ধদের নবজাগরন

১৯৩৫ সালে ভারত শাসন আইনটি ছিল সুবৃহৎ দলিল । ভারতের রাজনৈতিক সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে ১৯২৭ সালে গঠিত হয় সাইমন কমিশনের রির্পোট প্রকাশিত হয় ১৯৩০ সালে । কিন্তু ভারতীয়রা এই রির্পোট প্রত্যাখ্যান করেন । ভারতের রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতার কথা চিন্তা করে এর সমাধানের নিমিত্তে সরকার ১৯৩০-১৯৩২ সালের মধ্যে তিনটি গোল টেবিল বৈঠক করেন । কিন্তু সেগুলা ব্যর্থ হয় । ইতিমধ্যে ব্রিটিশ প্রধান মন্ত্রী সাম্প্রায়িক রোয়েদাদ ঘোষনা করেন । বিভিন্ন দল ও সম্প্রাদায় …

আরও পড়ুন
error: এই ব্লগের লেখা কপি করা যাবে না