ইতিহাস

কিছু কথা,প্রেক্ষিত পাহাড়

রাঙ্গামাটি,বান্দরবান ও খাগড়াছড়ি জেলা নিয়ে গঠিত “পার্বত্য চট্টগ্রাম”।পার্বত্য চট্টগ্রামকে ঘিরে গড়ে ওঠা সৌন্দর্যের লীলাভূমি বিশাল বিশাল সুউচ্চ পাহাড়।দেশের অন্যান্য জায়গা থেকে এই পাহাড়ের অর্থাৎ পার্বত্য চট্টগ্রামের বৈচিত্রটা যেমনি আলাদা, তেমনি আলাদা পাহাড় এবং পাহাড়ের বুকে বসবাস করা প্রকৃতিপ্রেমী প্রাণবন্ত সহজ সরল সাদামাটা পাহাড়ী মানুষগুলোর ইতিহাস।পাহাড়ের বুকে বসবাসরত ১৩ ভাষাভাষি ১৪টি জুম্ম জাতীসত্তার মানুষগুলো ইস্পাত সংগ্রামী এবং প্রকৃতিপ্রেমীও বটে।তারা প্রতিনিয়ত পাহাড় প্রকৃতির সাথে সংগ্রাম করে, বেঁচে …

আরও পড়ুন

আমাদের বঙ্গবন্ধু

পৃথিবী সৃষ্টির পর থেকে আজ অবধি যুগে যুগে এমন সব ব্যক্তিত্বের আগমন ঘটেছে, যাদের হাত ধরে মানবতার মুক্তির সনদ রচিত হয়েছে। ১,৪৭,৫৭০ বর্গ কিলোমিটারের এই ছোট্ট ভূ-খন্ডটির জন্মের সাথে যার নাম অঙ্গাঙ্গীকভাবে জড়িত তিনি আর কেউ নন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। গোপালগঞ্জ জেলার মধুমতি নদীর তীরবর্তী টুঙ্গিপাড়া গ্রামের সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে শেখ লুৎফুর রহমান ও সাহেরা খাতুনের ঘর আলোকিত করে …

আরও পড়ুন

শঙ্করদেব পাঠের গোড়ার আলাপ

শঙ্করদেব আমাদের এই অঞ্চলের ভাবান্দোলন বা ভক্তি আন্দোলনের অন্যতম পথিকৃৎ। আমাদের এই অঞ্চলের জনগণের সামাজিক-সাংস্কৃতিক -রাজনৈতিক আন্দোলনের প্রবাদ পুরুষ।তিনি ১৪৪৯ খ্রীষ্টাব্দে আসামে জন্মগ্রহণ করেন।সালটা পড়ে আমরা বুঝতে পারছি তিনি চৈতন্যদেবের প্রায় অর্ধশতাব্দী আগেরকার মানুষ। এই মহান ব্যক্তিত্ব শুধু আসামের নন, তিনি একইসঙ্গে বাঙলার সাথে সংযুক্ত। আমরা বলতে পারি তিনি বৃহৎ বাঙলার ভাবান্দোলনের প্রবাদ পুরুষ। তাঁর সাহিত্য- দর্শন আমাদের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বৃহৎ বাঙলার জ্ঞানতাত্ত্বিক ও …

আরও পড়ুন

বড়ুয়া’রা ‘মগ’ নয় !

মগ প্রথমত চট্টগ্রাম গালির ভাষা হিসেবে ব্যবহার শুরু হয়েছিলো । অন্থানীয় বা অচট্টগ্রামীরা চট্টগ্রামীদের মগ বলে হেয় করতে চাইত । যা হোক, মগের নামে একটা সম্প্রদায় ছিল এখন ও আছে । মগ আরাকান নিবাসী জাতি বিশেষ । জাতিতত্ত্ববিদেরা এদের ইন্দো-চীন নিবাসী বলে মনে করেন । সাধারণত মগ বলতে আরাকানীদের বুঝায় । আরাকানীরা চট্টগ্রামের কিছু অংশ, কখনো পুরো অংশ শাসন করেছে । স্থানীয় বৌদ্ধদের উপর মগদের …

আরও পড়ুন

চর্যাপদ : বাংলা সাহিত্যের পথ প্রদর্শক

বাংলায় মুসলমান আধিপত্য প্রতিষ্ঠিত হবার আগে ব্রাহ্মণ্য হিন্দুসমাজের পীড়নের আশঙ্কায় বাংলার বৌদ্ধগণ তাঁদের ধর্মীয় পুঁথিপত্র নিয়ে শিষ্যদেরকে সঙ্গী করে নেপাল, ভুটান ও তিব্বতে পলায়ন করেছিলেন, এই ধারণার বশবর্তী হয়ে হরপ্রসাদ শাস্ত্রী চারবার নেপাল পরিভ্রমণ করেন। ১৮৯৭ সালে বৌদ্ধ লোকাচার সংক্রান্ত তথ্য সংগ্রহের জন্য তিনি প্রথমবার নেপাল ভ্রমণ করেন। ১৮৯৮ সালের তার দ্বিতীয়বার নেপাল ভ্রমণের সময় তিনি কিছু বৌদ্ধ ধর্মীয় পুঁথিপত্র সংগ্রহ করেন। ১৯০৭ খ্রিস্টাব্দে তৃতীয়বার …

আরও পড়ুন

ভারত শাসন আইন ও বৌদ্ধদের নবজাগরন

১৯৩৫ সালে ভারত শাসন আইনটি ছিল সুবৃহৎ দলিল । ভারতের রাজনৈতিক সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে ১৯২৭ সালে গঠিত হয় সাইমন কমিশনের রির্পোট প্রকাশিত হয় ১৯৩০ সালে । কিন্তু ভারতীয়রা এই রির্পোট প্রত্যাখ্যান করেন । ভারতের রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতার কথা চিন্তা করে এর সমাধানের নিমিত্তে সরকার ১৯৩০-১৯৩২ সালের মধ্যে তিনটি গোল টেবিল বৈঠক করেন । কিন্তু সেগুলা ব্যর্থ হয় । ইতিমধ্যে ব্রিটিশ প্রধান মন্ত্রী সাম্প্রায়িক রোয়েদাদ ঘোষনা করেন …

আরও পড়ুন

সুলতানা রাজিয়া দিল্লির সিংহাসনে বসা একমাত্র নারী শাসক

সুলতানা রাজিয়া, ইতিহাসে আলোড়ন সৃষ্টিকারী একটি নাম। ভারতবর্ষের ইতিহাসে দিল্লির সিংহাসনে বসা একমাত্র নারী। ৮০০ বছর আগে শাসন করেছেন গোটা ভারতবর্ষ। তিনি ছিলেন ভারতবর্ষের প্রথম নারী শাসক। এ ছাড়াও একজন যোগ্য সুলতান ও যুদ্ধক্ষেত্রে একজন দক্ষ সৈনিক হিসেবে ছিলো তার সুখ্যাতি। তীক্ষ বুদ্ধিমত্তার সঙ্গে তিনি রাজকার্য পরিচালনা করেছিলেন।সুলতানা রাজিয়া জন্মগ্রহণ করেছিলেন ১২০৫ সালে। দৃপ্ত কঠিন ক্ষণজন্মা এই নারীর জীবন প্রদীপ নিভে গিয়েছিল খুব অল্পদিনেই। সুলতানা …

আরও পড়ুন

ফুটবল ও বিশ্বকাপ ফুটবলের ইতিহাস

first world cup

ফুটবলের ইতিহাস বিশ্বের প্রথম আন্তর্জাতিক ফুটবল খেলা হয়েছিল ১৮৭২ সালে স্কটল্যান্ড ও ইংল্যান্ডের মধ্যে। প্রথম আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতা ছিল ১৮৮৪ সালে শুরু হওয়া ব্রিটিশ হোম চ্যাম্পিয়নশিপ। এ সময়ে গ্রেট ব্রিটেন ও আয়ারল্যান্ডের বাইরে ফুটবল খেলা বলতে গেলে অনুষ্ঠিতই হত না। সেই শতাব্দীর শেষের দিকে বিশ্বের অন্যান্য প্রান্তে ফুটবলের জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি পেতে থাকে এবং এটিকে ১৯০০, ১৯০৪ ও ১৯০৬ সালের অলিম্পিকে প্রদর্শনী খেলা হিসেবে রাখা হয় তবে …

আরও পড়ুন

বাঙালী ছাত্র ইউনিয়ন

১৯২৪ সালের শেষের দিকে বর্মার গোপন পার্টির ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় “সারা বর্মা বাঙালী ছাত্র ইউনিয়ন প্রতিষ্ঠা করা হয়। নামে বাঙালী ছাত্র হলেও অবাঙালী ছাত্ররাও এর সদস্য হতে পারত।অনেক বাধা-বিপত্তি অতিক্রম করে এই ছাত্র ইউনিয়ন তার শক্তি সঞ্চয় করতে পারে এবং বর্মার বাঙালী ছাত্র-ছাত্রীদের অতি প্রিয় সংগঠনে পরিণত হয়। সেই সময় বিপ্লবী ছাত্র কর্মীরা এই সংগঠনের সদস্য ছিল। এই সংগঠন বহু বিপ্লবী কর্মীর জন্ম দিয়েছে। রেঙুন বিশ্ববিদ্যালয়ের …

আরও পড়ুন

প্রীতিলতা: এক অগ্নিকন্যার গল্প

উপমহাদেশে ব্রিটিশ বিরোধী আন্দোলনে কোনো নারীর ভূমিকা যদি আলোচনা করতে হয় তাহলে সবার আগে প্রীতিলতা ওয়াদ্দেদারকে রাখতে হবে। ১৯১১ সালের ৫ ই মে চট্টগ্রাম জেলার ধলঘাট গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। পিতার নাম ছিলো জগদ্বন্ধু ওয়াদ্দেদার, তিনি ছিলেন মিউনিসিপ্যাল অফিসের হেড কেরানী। মাতার নাম ছিলো প্রতিভাদেবী, প্রতিভাদেবী আদর করে প্রীতিলতাকে রাণী বলে ডাকতেন। ছোটবেলায় প্রীতিলতা ছিলো অন্তর্মুখী, লাজুক এবং মুখচোরা স্বভাবের। ডা. খাস্তগীর সরকারী বালিকা বিদ্যালয় ছিল …

আরও পড়ুন
error: Content is protected !!